ঢাকাশনিবার , ৭ অক্টোবর ২০২৩
  1. অগ্নিকান্ড
  2. অনুষ্ঠান
  3. অপরাধ
  4. অবৈধ বালু উত্তোলন
  5. অভিনন্দন
  6. অভিযোগ
  7. অর্থনীতি
  8. আইন ও বিচার
  9. আওয়ামী লীগ
  10. আওয়ামী লীগে
  11. আক্রান্ত
  12. আটক
  13. আত্মহত্যা
  14. আদালত
  15. আনন্দ মিছিল

সাতক্ষীরায় সম্পত্তির জেরে বৃদ্ধ প্রতিবন্ধী মা ও ছোট ভাইকে গুরুতর জখম

Link Copied!

সাতক্ষীরায় সম্পত্তির জেরে বৃদ্ধ প্রতিবন্ধী মা ও ছোট ভাইকে গুরুতর জখম

ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি মোহাম্মদ রফিক সাতক্ষীরা

সাতক্ষীরা জেলার আশাশুনি উপজেলার ০৯ নং আনুলিয়া ইউনিয়নের ০৬ নং ওয়ার্ডের বিছট গ্রামের মৃত ইসহাক মোল্যার স্ত্রী মোছাঃ নেছা বিবি (৮০) নামে এক দৃষ্টি প্রতিবন্ধী বৃদ্ধাকে তার সম্পত্তি লিখে না দেওয়ায় তারই নিজ সন্তান কতৃক ধারালো দেশীয় অস্ত্র দিয়ে মারাত্মক ভাবে জখম করার গুরুতর অভিযোগ উঠেছে।

এজাহার সূত্রে জানা গেছে, বিধবা ও দৃষ্টি প্রতিবন্ধী ঐ নারীর স্বামী গত ৩০ বছর পূর্বে মারা যান। স্বামীর মৃত্যুর পর তিন সন্তানের মধ্যে বড় ও মেজ দুই সন্তানের নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে ছোট ছেলে কুদ্দুস মোল্যার (৪২) সংসারে পরম যত্নে তিনি থাকেন। অন্য দুই সন্তানের মধ্যে বড় মোঃ জমাত মোল্যা (৫২) ও মেজ মোঃ মজি মোল্যা (৪৮)। বড় ছেলের পুত্র মোঃ জামাল মোল্যা (২৫) এবং উক্ত দুই সন্তান বদ্ধার বিলান ও ভিটামাটির সম্পত্তি লিখে নেয়ার জন্য বিভিন্ন সময় চাপ সৃষ্টি করতে থাকে। কিন্তু কারো কথা শুনে তাদের নামে সম্পত্তি লিখে না দেওয়ায় তারা মা ও ছোট ভাই কুদ্দুস মোল্যার উপর দিন দিন ক্ষিপ্ত হয়। সর্বশেষ ২৪/০৯/২৩ ইং তারিখ বিকাল আনুঃ ০৪:৩০ ঘটিকার সময় পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী বৃদ্ধা মাকে দুই সন্তান সম্পত্তি লিখে দিতে জোর করা হলে প্রতিবন্ধী মা তাদের এই মুহূর্তে সম্পত্তি লিখে দিবেন না বলে অস্বীকৃতি জানায়। তাতে বড় ছেলে জমাত মোল্যার পুত্র মোঃ জামাল মোল্যা (২৫) ক্ষিপ্ত হয়ে হাতুড়ি দিয়ে বৃদ্ধাকে হত্যার উদ্দেশ্যে পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী মাথায় সজোরে আঘাত করে। হাতুড়ির আঘাত বদ্ধা ঐ নারীর কপালে লেগে তাৎক্ষণিক গভীর ক্ষত সৃষ্টি হয় এবং প্রবল বেগে রক্ত ক্ষরণ হয়। নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত অন্য দুই লোভী সন্তান মায়ের গলায় শাড়ী পেঁচিয়ে পুনরায় হত্যা করার চেষ্টা করে। মায়ের রক্ত আর বেধড়ক মারপিট দেখে ছোট ছেলে কুদ্দুস মোল্যা সেখানে প্রতিহত করে বৃদ্ধমাকে বাঁচাতে গেলে তাকেও দা দিয়ে কুপিয়ে জখম করে তার পকেটে থাকা ৫,২০০/- (পাঁচ হাজার দুইশ) টাকা কাড়িয়া নেয়। তাদের আত্বচিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে রক্তাক্ত অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে আশাশুনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে ভর্তি না করে অবস্থা গুরুতর বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ উন্নত চিকিৎসার জন্য সাতক্ষীরা মেডিকেলে ভর্তির জন্য প্রেরণ করেন। সাতক্ষীরা মেডিকেল তাৎক্ষণিক ভর্তি করলেও গুরুতর জখমের রক্তক্ষরণ বন্ধ না হওয়ায় আরো উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করেন। বৃদ্ধামাকে গুরুতর আহত করার ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। এ বিষয়ে ছোট ছেলে আহত কুদ্দুস মোল্যা গত ২৬/০৯/২৩ ইং তারিখে বাদী হয়ে ন্যায় বিচারের দাবিতে আশাশুনি থানায় একটি এজাহার দায়ের করেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানা পুলিশ কোন আসামি গ্রেফতার দেখানো হয়নি এমন প্রশ্নে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এ এসআই কবির বলেন, আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে তদন্ত করেছি। মামলা রেকর্ড করবেন ওসি সাহেব। এজাহারে অনেক সংশোধন দরকার এজন্য বাদীকে ফোনে যোগাযোগ করে থানায় আসতে বলেছি। এ বিষয়ে আশাশুনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি বিশ্বজিৎ কুমার অধিকারী উক্ত ঘটনার তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস প্রদান করেন।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।

Design & Developed by BD IT HOST